করোনার নতুন ভেরিয়েন্ট ওমিক্রনের প্রভাব কি পড়বে লোকাল ট্রেনের ওপর? কি বললেন মুখ্যমন্ত্রী? জানুন বিস্তারিত।

নিজস্ব প্রতিবেদন :-করোনা দ্বিতীয় পর্ব কেটে যাওয়ার পর পুনরায় তৃতীয় ঢেউ আছড়ে পড়েছে গোটা ভারতবর্ষের উপর নতুন এক প্রজাতি । যার নাম অমিক্রণ । সেই প্রজাতির সংক্রমণ প্রতিনিয়ত বেড়েই চলেছে । বিশেষজ্ঞদের মতে আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে দৈনিক সংক্রমণের হার অত্যধিক হারে বেড়ে যাবে । পশ্চিমবঙ্গের দৈনিক সংক্রমণ কমপক্ষে 30 থেকে 35 হাজার হতে পারে বলে অনুমান ।

এমতাবস্থায় স্বাস্থ্য ব্যবস্থা ভেঙ্গে পড়তে চলেছে সেটা সন্দেহের কোনো অবকাশ নেই। তাহলে কি পথে হাঁটতে চলেছে রাজ্য সরকার কি জানালেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।দীর্ঘদিন ধরে সবকিছু বন্ধ থাকার পর ধীরে ধীরে পরিস্থিতি আবার স্বাভাবিক হয়ে ছিল ।সে স্বাভাবিকের সাথে তাল মিলিয়ে লোকাল ট্রেন চলতে শুরু করেছিল রাজ্যের বুকে।

কিন্তু পুনরায় সংক্রমনের তীব্র আকার ধারণ করার ফলে অনেকেই মনে করছে যে লোকাল ট্রেন হয়তো আবার সম্পূর্ণভাবে বন্ধ করে দেওয়া হবে ।তবে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ঐদিন প্রশাসনিক বৈঠকের জানান এখনই লোকাল ট্রেন বন্ধ করা যাবে না ।যেহেতু গঙ্গাসাগর মেলা রয়েছে জনসাধারণের অসুবিধা হবে এই মুহূর্তে বন্ধ না করা গেল কিছুটা কমিয়ে ফেলা যেতে পারে ।

করোনার এই নতুন প্রজাতি ওমিক্রমের বাড়বাড়ন্ত লক্ষ্য করে ইতিমধ্যেই রাজ্য সরকার ব্রিটেন থেকে আগত উড়ান নিষিদ্ধ করেছে। অন্যদিকে মুখ্যসচিবকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, “লোকাল ট্রেনের উপরও প্রভাব পড়বে। এখনই সব বন্ধ করতে যেও না। কিন্তু কিছুটা কমিয়ে দাও। জনগণের যাতে অসুবিধা না হয়। কারণ যাঁরা কলকাতায় যাবেন, তাঁদের রুজি-রোজগার দীর্ঘদিন ধরে বন্ধ। একটু দেখে নাও, কাদের হচ্ছে বেশি।”

এরপরেই আবার তাকে বলতে শোনা যায়, ‘ট্রেনটা এক্ষুণি কমাবে না, গঙ্গাসাগর মেলা আছে।’ মঙ্গলবার আক্রান্তের সংখ্যা ছিল ৭৫২। বুধবার আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ায় ১০৮৯ এবং বৃহস্পতিবার দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা দু’হাজার পার করে দাঁড়ায় ২১২৮। এমত অবস্থায় আবার রয়েছে গঙ্গাসাগর মেলা। স্বাভাবিকভাবেই আমজনতার পাশাপাশি চিন্তা বাড়ছে সরকারের।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button