জারি হল মোবাইল সিমের নতুন এই নিয়ম! না মানলেই বন্ধ হবে নম্বর! জানুন বিস্তারিত।

নিজস্ব প্রতিবেদন :-এবার থেকে সিম কার্ড নিয়ে বড়োসড়ো সিদ্ধান্ত দিল টেলিকম বিভাগ সম্প্রতি তারা একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করেছে যে বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে তারা যাচ্ছে যে একজন ব্যক্তির কাছে যদি নয়টি বেশি সিম কার্ড থেকে থাকে তাহলে ভেরিফিকেশনের মাধ্যমে অতিরিক্ত সিম কার্ড কারেকশন ডিএকটিভেট করে দেওয়া হবে ।

একটি গ্রাহকের কাছে যদি নয় টির বেশি কানেকশন থেকে থাকে তাহলে সেই গ্রাহককে রিভেরিফিকেশন করতে হবে এবং non-verified এবং রিভেরিফিকেশন এর মধ্যে দিয়ে সেই গ্রাহক নিজের সিমের অস্তিত্ব বজায় রাখতে পারবে । 7 ই ডিসেম্বর জারি করা আদেশ অনুসারে, গ্রাহকরাদের সেই কানেকশন রাখার বিকল্প দেওয়া হবে, যা তাদের কাছে রাখতে চায় এবং বাকি কানেকশনগুলি ডিএক্টিভেট করতে চায়।

নিয়ম মোতাবেক, যে সিমের ক্ষেত্রে তথ্য যাচাই করা যায়নি, সেগু-লির গ্রাহকরা যদি সিম ছেড়ে দিতে চান, তাহলে সেই সিমগুলির ডেটা পরিষেবা-সহ ‘আউটগোয়িং’ পরিষেবা ৩০ দিনের মধ্যে বন্ধ হয়ে যাবে। ‘ইনকামিং’ পরিষেবা বন্ধ হয়ে যাবে ৪৫ দিনের মধ্যে। যদি গ্রাহকরা পুনরায় তথ্য যাচাই না করেন, তাহলে ৬০ দিনের মধ্যে সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেওয়া হবে।

যে সময়সীমা ৭ ডিসেম্বর থেকে কার্যকর হবে।তবে যদি কোনও নম্বরকে চিহ্নিত করে কোনও এজেন্সি বা আর্থিক প্রতিষ্ঠান, তাহলে পাঁচদিনের মধ্যে ‘আউটগোয়িং’ পরিষেবা বন্ধ করে দেওয়া হবে। ১০ দিনের মধ্যে বন্ধ হয়ে যাবে ‘ইনকামিং’ পরিষেবা। যদি গ্রাহকরা পুনরায় যাচাই না করেন, তাহলে ১৫ দিনের মধ্যে সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেওয়া হবে।

মূলত বিভিন্ন ফেক আইডি কল ক্রাইম ইত্যাদির সাথে জড়িত থাকা সিমকার্ড গুলি কে চিহ্নিত করার জন্য এবং এই ঘটনাকে আটকে দেওয়ার জন্য এই ব্যবস্থা নিতে বাধ্য হয়েছে।যেভাবে আপনি জানতে পারবেন যে আপনার সিম কার্ড কতগু-লি রয়েছে তা পদ্ধতি নিম্নরূপ

টেলিকম বিভাগ এর tafcop.dgtelecom.gov.in পোর্টালে আপনাকে যেতে হবে ।এরপর এখানে আপনার মোবাইল নাম্বার দিতে হবে।তারপর আপনার ফোনে একটা ওটিপি আসবে।সেটি ভেরিফিকেশন হওয়ার পর আপনার নামে কতগুলো আইডি চলছে সেটা আপনি জানতে পারবেন ।এভাবেই খুব সহজে আপনার নামে কোন ফেক আইডি চলছে কিনা সেটা আপনি জানতে পারবেন এবং অভিযোগ করতে পারবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button