বৃষ্টির কালো মেঘে ছেয়ে যেতে চলেছে বাংলার আকাশ! কবে থেকে হবে ভারী বর্ষণ? জানালো হওয়া অফিস!

নিজস্ব প্রতিবেদন:ধীরে ধীরে নিজের বিদায় পর্বে চলে এসেছে শীত ঋতু।রবিবার এবং সোমবার বৃষ্টির সম্ভাবনার কথা বললেও আবহাওয়া ছিল একেবারেই শুষ্ক।এমতাবস্থায় পশ্চিমী ঝঞ্জা এবং পূবালী হওয়ার কারণে আবহাওয়ার খামখেয়ালিপনা বিশেষভাবে লক্ষণীয় হচ্ছে।

প্রসঙ্গত চলতি বছরের শুরু থেকেই নানান ধরনের প্রাকৃতিক দুর্যোগের কারণে বেশ কিছুটা বাধা প্রাপ্ত হয়েছিল শীতকাল। যদিও মাঘের শেষ বেলায় হাড় কাঁপানো ঠান্ডা অনুভূত হয়েছিল বঙ্গবাসীর। কিন্তু তা খুব বেশিদিন স্থায়ী হয়নি।

শীতের বিদায় পর্বের সূচনা হয়ে গেলেও সকাল থেকে বেশ কুয়াশা দেখা যাচ্ছে দক্ষিণবঙ্গের বহু এলাকায়।যার ফলস্বরুপ আবহাওয়াবিদরা জানিয়েছেন দক্ষিণবঙ্গের পশ্চিমাঞ্চলের জেলাগুলিতেও আগামী বেশ কয়েক দিন ঠাণ্ডা আমেজ বজায় থাকবে চলেছে। আপাতত উত্তরবঙ্গ থেকে শুরু করে দক্ষিণবঙ্গে বৃষ্টি পাত এর কোনো সম্ভাবনা নেই।

জেলাগুলির আবহাওয়া মোটামুটি সুস্থ থাকবে।তবে ভোরের দিকে ঘন কুয়াশার কারণে দৃশ্যমানতা বাধার সৃষ্টি হতে পারে। তবে বৃহস্পতিবার ঝাড়খণ্ডের উপর একটি ঘূর্ণাবর্ত তৈরি হওয়ার কারণে কয়েকটি জেলায় হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টিপাত পরিলক্ষিত হবে। তবে তার খুব একটা প্রভাব পড়বে না তাপমাত্রার উপর।

আবহাওয়াবিদদের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী চলতি সপ্তাহের শেষ ডিগ্রি তাপমাত্রা প্রায় 4 থেকে 5 ডিগ্রি সেন্টিগ্রেড পর্যন্ত বৃদ্ধি পেতে পারে।এদিন মঙ্গলবার কলকাতায় সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল 30 ডিগ্রির কাছাকাছি এবং সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে 17 ডিগ্রী সেলসিয়াসের আশেপাশে। সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল স্বাভাবিকের থেকে 1° কম। বাতাসের আপেক্ষিক আদ্রতার পরিমাণ স্বাভাবিক। গত 24 ঘন্টায় কোন বৃষ্টিপাত হয়নি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button