১ মিনিট লেটেরর জন্য ৩৬ টাকা ফাইন করায় রেলের ওপরেই ১৪ লক্ষ টাকার মামলা ঠুকলেন চালক!

নিজস্ব প্রতিবেদন :- মাত্র এক মিনিট দেরি হয়েছিল স্টেশনে পৌঁছাতে তার জন্য 36 টাকা জরিমানা করেছিল। ক্ষুব্ধ হয়ে চালক 14 লক্ষ টাকা পাল্টা মামলা করেছিলেন। কোথায় ঘটনা ঘটেছে জানতে নিশ্চয়ই আপনিও আগ্রহ প্রকাশ করেছেন ইতিমধ্যে। তাহলে আপনাদেরকে পুরো ঘটনাটা বিস্তারিতভাবে জানিয়ে রাখি। আমরা জানি জাপানের সময় বিশ্ব বিখ্যাত অর্থাৎ জাপানের প্রতিটি যানবহন অত্যন্ত সময় মাফিক হয়।

যদি কোনো কারণে আগে কিংবা দেরিতে পৌঁছয় তাহলে জাপানের সরকার লিখিতভাবে প্রতিটি গ্রাহকের কাছে তার জন্য ক্ষমা চেয়ে নেয় ।পাশাপাশি চালকের বিরুদ্ধে একাধিক মামলা এই ঘটনা তারই একটা অংশ। গত বছর জুন মাসে জাপানের একটি বেসরকারি সংস্থা একটি ট্রেনের চালক এর উপর 36 টাকা জরিমানা করেছিল কারণ তিনি ট্রেন নিয়ে প্লাটফর্মে পৌঁছাতে এক মিনিট দেরি করেছেন। কিন্তু তাতে তার কোন দোষ ছিল না বলে জানিয়েছেন চালক।

তাই ক্ষুব্দ হয়ে রেলের বিরুদ্ধে 14 লক্ষ টাকার মামলা ঠুকেছেন তিনি। জাপানি সংবাদ ওয়েবসাইট Sorannews24-এর রিপোর্ট বলছে, দক্ষিণ জাপানের ওকায়ামা স্টেশন থেকে একটি খালি ট্রেন নিয়ে আসতে বলা হয়েছিল। কিন্তু ট্রেনে ওঠার সময়ে তিনি ভুল প্ল্যাটফর্মে পৌঁছে যান। তারপরে সঠিক প্ল্যাটফর্মে ফের ছুটে আসেন। আর তার ফলে আগের চালককে ছাড়তে ও তাঁর সিটে বসতে প্রায় ২ মিনিট দেরি করেন তিনি।

ফলে ট্রেনটি ১ মিনিট দেরিতে ছাড়ে। কার শেডেও পৌঁছায় ১ মিনিট দেরিতে। ট্রেনের চালক জানান যে এটা তার কোন দোষ ছিল না এমনকি এই এক মিনিট দেরি হওয়াতে যাত্রীর ওপর কোনো রকম কোনো প্রভাব পড়েনি। কারণ ট্রেনটি সম্পূর্ণ ফাঁকা ছিল তাই সংস্থার নাম খারাপ বা বদনাম হবার কোনো সুযোগ নেই। অপরদিকে রেল জানিয়েছে যে ট্রেনটি কে সঠিক সময়ে দায়িত্ব নিয়ে নির্দিষ্ট স্থানে পৌঁছাতে ব্যর্থ ছিল সেই চালক তাই আইন মেনেই তার বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে।

এই ঘটনাটি রীতিমত অবাক করে তুলেছে নেট দুনিয়াকে। অপরদিকে আমাদের ভারতবর্ষে চিত্র দেখি তাহলে তো আর নতুন করে বলার কোন দরকারই পড়ে না। কখনো কখনো এক ঘন্টা দেড় ঘন্টা দেরীতে এসে পৌঁছায় ট্রেন। এমনকি অনেকে মনে করেন যে নির্দিষ্ট সময়ে ভারতবর্ষের ট্রেন পৌঁছানো মানে সত্যিই ভীষণ সৌভাগ্যের ব্যাপার।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button