ভয়ঙ্কর দৃশ্য! কাছে যেতেই রেগে তেড়ে এলো বিশাল কেউটে সাপ! তারপর যা ঘটলো! মুহূর্তে ভাইরাল ভিডিও।

নিজস্ব প্রতিবেদন:সোশ্যাল মিডিয়া মানেই আজকাল ভাইরাল ভিডিওর সম্ভার।যেকোনো জিনিস খুব সহজেই নেটওয়ার্ক মাধ্যমগুলোতে ভাইরাল হয়ে ওঠে।লাইক কমেন্ট এবং শেয়ার সংখ্যার উপর ভিত্তি করে খুব সহজেই কোন ভিডিও বা ফটো কতটা ভাইরাল হয়েছে তা নির্ধারণ করা যায়।

সাধারণ মানুষ থেকে শুরু করে সেলিব্রিটি সকলেই খুব সহজেই এই নেট মাধ্যমের অংশ হয়ে উঠেছেন।বিশেষত স্মার্টফোনের ব্যবহার সহজলভ্য হয়ে যাওয়ার পর থেকেই এই সোশ্যাল মিডিয়া মানুষের জীবনের সঙ্গে ওতপ্রোতভাবে জড়িয়ে গিয়েছে।

শুধুমাত্র মানুষ কিংবা সেলিব্রিটি নয় আজকাল জীবজন্তুরাও সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে ভাইরাল। বিশেষত সাপের ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় অত্যন্ত দ্রুতগতিতে ছড়িয়ে পড়তে দেখা যায়। যেমনটা এর আগেও আমরা ইউটিউবের বিভিন্ন চ্যানেলে দেখতে পেয়েছি।সম্প্রতি আবারও একটি ভিডিও নেট মাধ্যমে উঠে এসেছে যেখানে দেখা যাচ্ছে এক ব্যক্তি ফাঁকা ড্রামের ভেতর থেকে দুটি কেউটে সাপ উদ্ধার করছেন।

প্রথমেই জানিয়ে রাখি এই সাপ অত্যন্ত বিষধর প্রকৃতির হয়ে থাকে।একবার কোন মানুষকে যদি এই সাপ ছোবল দেয় সে ক্ষেত্রে সেই মানুষের মৃত্যু হতে বাধ্য। সাপটিকে ড্রাম থেকে উদ্ধার করার সময় যুবককে বেশ অসুবিধার সম্মুখীন হতে হয়েছিল।কিন্তু অত্যন্ত দক্ষতা সহকারে সাপ ধরার স্টিক দিয়ে এই কাজটি সম্পন্ন করেন তিনি।

বেশ কয়েকবার ক্ষুব্ধ হয়ে একটি কেউটে সাপ যুবকটির দিকে বিষ ছুড়ে দেওয়ার চেষ্টা করে। যদিও শেষ পর্যন্ত সাপটি সফল হয়নি। ওই যুবকের নাম সমিরন বারিক। যারা আজকাল কমবেশি সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহার করে থাকেন তারা সকলেই এই ব্যক্তিকে চেনেন।

তার একটি নিজস্ব ইউটিউব চ্যানেল রয়েছে যেখান থেকে বিভিন্ন সাপ উদ্ধারের ভিডিও শেয়ার করতে দেখা যায় তাকে। এই ভিডিওটি প্রায় কয়েক মাস আগে শেয়ার করা হয়েছে। প্রায় একশো সত্তর হাজার দর্শক এই ভিডিওটি দেখে ফেলেছেন। যদি এই প্রতিবেদনটি আপনাদের ভালো লেগে থাকে সেক্ষেত্রে অবশ্যই আপনারাও দেখে নিতে পারেন এই ভিডিও।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button